Thokbirim | logo

১৪ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ | ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

সিন্ধুকছড়িতে ঘর ভেঙে ভূমি বেদখলের প্রতিবাদে বিক্ষোভ

প্রকাশিত : জুন ১৪, ২০২১, ২৩:২৫

সিন্ধুকছড়িতে ঘর ভেঙে ভূমি বেদখলের প্রতিবাদে বিক্ষোভ

খাগড়াছড়ি জেলার গুইমারা উপজেলার সিন্দুকছড়ি-মহালছড়ি সড়ক পুংখিমুড়া পাড়ার সনেরঞ্জন ত্রিপুরার ঘর ভাংচুর ও অবৈধভাবে ভূমি বেদখলের প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদী মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রবিবার (১৪জুন ২০২১ ইং) সকালে ত্রিপুরা স্টুডেন্টস্ ফোরাম, বাংলাদেশ (টিএসএফ)’র ব্যানারে বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি খাগড়াছড়ি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ থেকে শুরু হয়ে খাগড়াছড়ির জেলা শহরস্থ মুক্তমঞ্চে গিয়ে সমাবেশে করে। পরে পুনরায় খাগড়াছড়ি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে গিয়ে শেষ হয়। এতে টিএসএফ ছাড়াও বিভিন্ন ছাত্র সংগঠন, স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের নেতৃবৃন্দসহ সাধারণ জনগন অংশ নেন।

ত্রিপুরা স্টুডেন্টস্ ফোরাম, বাংলাদেশ’র কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক অঞ্জুলাল ত্রিপুরার সঞ্চালনায়   সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি  প্রেম কুমার ত্রিপুরা।  সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ মারমা স্টুডেন্টস্ কাউন্সিল (বিএমএসসি) কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি নিঅং মারমা, ত্রিপুরা স্টুডেন্টস্ ফোরাম, বাংলাদেশ’র কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক নক্ষত্র ত্রিপুরা, হিল উইমেন্স ফেডারেশনের জেলা আহবায়ক এন্টি চাকমা, গণতান্ত্রিক ছাত্র কাউন্সিলের প্রতিনিধি ফোরামের সদস্য কৃপায়ন ত্রিপুরা, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ (পিসিপি) প্রতিনিধি জেশি চাকমা, এলাকা প্রতিনিধি ও গুইমারা উপজেলার টিএসএফ’র সভাপতি বতেন ত্রিপুরা, স্থানীয় কার্বারী লোকনাথ ত্রিপুরা প্রমুখ।

 

বক্তারা বলেন, গত শনিবার (১২ জুন ২০২১খ্রিঃ) রাত আনুমানিক ১১টার দিকে সেনাবাহিনীর মহালছড়ি সেনা জোনের মৃত্যুঞ্জয়ী ২৫ বেঙ্গলের অধীন ধূমনীঘাট সেনা ক্যাম্পের একদল সেনা সদস্য মহালছড়ি উপজেলার ২২৬নং সিন্দুকছড়ি মৌজাধীন মহালছড়ি-সিন্ধুকছড়ি সড়কের পাশে পুংখিমুড়া নামক এলাকায় সনেরঞ্জন ত্রিপুরার সদ্য নির্মিত বাড়ি ভেঙে দেয়া হয়। পাশাপাশি সেখানে থাকা তার বিভিন্ন ধরনের গৃহ নির্মান সরঞ্জামাদি দা, কোদাল, শাবলসহ গৃহের সমস্ত খুঁটি ও বেড়াগুলো গাড়িতে তুলে নিয়ে যায়। এবং একদিনের মধ্যে তড়িঘড়ি করে দ্রুত সেখানে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর মাধ্যমে কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপন করা হবে বলে উদ্বোধন করে একটি সাইনবোর্ড টাঙিয়ে দিয়ে যায়।

বক্তারা আরো বলেন, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা কেবল সনেরঞ্জন ত্রিপুরার বাড়ি ভেঙে দিয়ে থেমে থাকেনি। তারা সনেরঞ্জন ত্রিপুরার ভোগদখলীয় ঐ জায়গাটিও নিজেদের দখলে নিয়ে নেয়। এছাড়া সনেরঞ্জন ত্রিপুরার ঐ জায়গার পার্শ্ববর্তী আরও দুই গ্রামবাসীর জায়গা বেদখল করে নেয়।

এন্টি চাকমা বলেন, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কাজ দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষা করার। কিন্তু বর্তমানে  তারা পাহাড়ে এসে পাহাড়িদের উপর প্রতিনিয়ত অন্যায় অত্যাচার চালিয়ে যাচ্ছে। পাহাড়িদের ভূমি বেদখল করে পর্যটন ব্যবসা করেছে। একটি গণতান্ত্রিক দেশের  সেনাবাহিনী এভাবে জনগণের অন্যায়ভাবে ভূমি বেদখল করে ব্যবসা করতে পারে না। এটা জনগণের উপর জুলুম জারি করা ছাড়া কিছুই নয়। এটা স্পষ্ট যে পাহড়ে মানবাধিকার পরিস্থিতি লঙ্ঘন করা হচ্ছে।  তাই অবিলম্বে পাহাড়ে উন্নয়নের নামে, পর্যটনের নামে ভূমি বেদখল বন্ধ করে পাহাড়িদের ভূমি অধিকার নিশ্চিত করতে হবে।

সমাবেশ থেকে বক্তারা কয়েকটি দাবি উত্থাপন করেন: দাবিগুলো হলো:

০১। পার্বত্য এলাকায় চিরাচরিত প্রথাগত ভূমি ব্যবস্থাপনা, ভূমি কমিশন আইন ২০০১ ও ১৯০০ সালের পার্বত্য চট্টগ্রাম শাসন বিধিকে শ্রদ্ধা প্রদর্শন করতে হবে;

০২। বেদখলকৃত জায়গাটি প্রকৃত মালিকদের নিকট সম্পূর্ণভাবে ফেরত দিতে হবে;

০৩। কমিউনিটি ক্লিনিক নির্মাণের জন্য পূর্ব নির্ধারিত পাশের জায়গায় উক্ত কমিউনিটি ক্লিনিকটি স্থানান্তরিত করতে হবে;

০৪। পুংখীমুড়া এলাকার স্থানীয় অধিবাসীদের জীবন জীবিকা ও নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে;

০৫। হোটেল, মোটেল, পর্যটন ও উন্নয়নের নামে পাহাড়ি  উচ্ছেদ বন্ধ করতে হবে।

প্রতিবাদ সমাবেশের আগে শহরে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়। মিছিলটি খাগড়াছড়ি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ থেকে বের হয়ে শহর প্রদক্ষিণ করে।

।। আদিত্য ত্রিপুরা, খাগড়াছড়ি



 




সম্পাদক : মিঠুন রাকসাম

উপদেষ্টা : মতেন্দ্র মানখিন, থিওফিল নকরেক

যোগাযোগ:  ১৯ মণিপুরিপাড়া, সংসদ এভিনিউ ফার্মগেট, ঢাকা-১২১৫। 01787161281, 01575090829

thokbirim281@gmail.com

 

থকবিরিমে প্রকাশিত কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। Copyright 2020 © Thokbirim.com.

Design by Raytahost